সিরাজগঞ্জ জেলার সলঙ্গা থানায় একটি প্রাইভেটকার চাকা ফেটে নিয়ন্ত্রণ হারানোর পর দুর্ঘটনায় স্বামী ও স্ত্রী নিহত হয়েছেন। এছাড়াও আহত হয়েছেন একই পরিবারের ৪ সদস্য। নিহতরা হলেন টাঙ্গাইল সদর উপজেলার কালিহাতী গ্রামের সাখাওয়াত হোসেন (৩৫) এবং তার স্ত্রী হালিমা আকতার (২৫)। আহতরা হলেন, নিহত সাখাওয়াত হোসেনের বাবা সৈয়দ আবু বকর সিদ্দীক(৬০), মা সালেহা বেগম (৪৮), ছোট বোন তুলী আকতার (৩০) এবং তার ছেলে দ্বীপ(০৮)।

শুক্রবার দুপুর সাড়ে ১২ টার দিকে সলঙ্গা থানার হাটিকুমরুল-বনপাড়া মহাসড়কের র‌্যাব-১২ হেড কোয়ার্টারের পাশে এ ঘটনা ঘটে। হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানার ওসি আবদুল কাদের জিলানী জানান, নিহত সাখাওয়াত হোসেন তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে প্রাইভেটকারযোগে টাঙ্গাইল থেকে পাবনার সাইকোলায় বোনের বাড়িতে বেড়াতে যাচ্ছিলেন। বেলা সাড়ে বারটার দিকে হাটিকুমরুল এলাকায় র‌্যাব-১২ হেড কোয়াটারের কাছে পৌঁছালে প্রাইভেটকারটির সামনের চাকা ফেটে যায়। গাড়িটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশের গাছকে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই সাখাওয়াত এবং তার স্ত্রী হালিমা নিহত হন। ওসি জানান,পুলিশ খবর পেয়ে নিহতদের লাশ উদ্ধার করে এবং আহতদের সিরাজগঞ্জ সদর হাসপাতাল ভর্তি করে। হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা. রোকনুদ্দিন আকাশ জানান, আহতদের মধ্যে দ্বীপের অবস্থা আশংকাজনক। তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

LEAVE A REPLY