মাঠের আম্পায়ার চাইলেই তৃতীয় আম্পায়ারের কাজ শুরু হয়। কিন্তু মাস্টার ব্লাস্টারের মতে, তৃতীয় আম্পায়ারকে সরাসরি হস্তক্ষেপের অধিকার দেওয়া উচিত। ডিআরএস নিয়ে এখন অনেক কথা চলছে। সেই প্রসঙ্গে বলতে গিয়েই এই মন্তব্য করেছেন শচীন টেন্ডুলকর। তাঁর মতে, ডিআরএস ব্যবহার মানেই সব সময় সঠিক সিদ্ধান্ত হওয়া।  এবং তিন আম্পায়ারেরই একসঙ্গে কাজ করা উচিত। ‘‘তিনজন আম্পায়ারেরই একসঙ্গে দল হিসেবে কাজ করা উচিত। যদি এমন হয় তৃতীয় আম্পায়ার কিছু দেখলেন। তা হলে তাঁর সেখানে মতামত দেওয়ার অধিকার থাকা উচিত ফিল্ড আম্পায়ারদের। যেমন তিনি বলতে পারেন, এটা আউট নয় বা উল্টোটা। তাতে সিদ্ধান্ত বদলে যেতে পারে। কিন্তু সঠিক সিদ্ধান্ত হবে।’’

এই সিরিজে বিসিসিআই-এর ডিআরএস ব্যবহার করার সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানিয়েছেন শচীন । টেকনলজির উপর ভরসার কথাই শুনিয়েছেন তিনি। বলেন, ‘‘আমাদের টেকনলজির উপর ভরসা ছিল না। কিন্তু সময়ের সঙ্গে সঙ্গে অবস্থার পরিবর্তন হয়েছে। টেকনলজি নিয়ে আরও রিসার্চ হওয়া প্রয়োজন। আমার জিম্বাবোয়ে-বাংলাদেশ টেস্টের কথা মনে পড়ছে। সেখানে কেউ জানত না কী ব্যবহার করতে হবে। এটি বিশ্ব ক্রিকেটের সর্বত্র ছড়িয়ে দেওয়া উচিত।’’ ক্রিকেট নিয়মের উন্নতির পক্ষে । যেটা বিশ্বের যেখানেই খেলা হোক না কেন একই থাকবে।

 

LEAVE A REPLY