আন্তর্জাতিক ডেস্ক

এ বছর সাহিত্যে নোবেল জয়ী মার্কিন সঙ্গীতশিল্পী ও গীতিকার বব ডিলান আগামী মাসে সুইডেনের রাজধানী স্টকহোমে অনুষ্ঠিত নোবেল পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন না বলে জানিয়েছে সুইডিশ অ্যাকাডেমি।

নোবেল অ্যাকাডেমির কাছে লেখা এক চিঠিতে এই আমেরিকান গায়ক ও গীতিকার জানিয়েছেন, পূর্ব প্রতিশ্রুত কিছু কর্মসূচীর কারণে অনুষ্ঠানে তিনি উপস্থিত হতে পারছেন না।

সুইডিশ অ্যাকাডেমি জানিয়েছে, তারা বব ডিলানের সিদ্ধান্তকে সম্মান জানান।

তবে, পুরস্কার নিতে হাজির না হলেও তাকে আগামী ছয় মাসের মধ্যে নোবেল বক্তৃতা প্রদান করতে হবে বলে জানানো হয়েছে।

আমেরিকান সংগীত ঐতিহ্যে নতুন কাব্যিক অভিব্যক্তি সৃষ্টির স্বীকৃতি হিসেবে গত ১৩ অক্টোবর নোবেলজয়ী হিসেবে ডিলানের নাম ঘোষণার পর থেকে আয়োজকরা তার সঙ্গে বারবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়। এ বিষয়ে দিনের পর দিন তাঁর নীরবতা নিয়ে অনেকের কাছেই প্রশ্ন তৈরি হয়। বব ডিলানের নীরবতায় নোবেল কমিটির একজন সদস্য একে ‘অভব্য আচরণ’ বলে সমালোচনাও করেন। তবে বব ডিলান তাঁর নীরবতা ভাঙেন সাহিত্যে নোবেল প্রাপ্তির প্রায় দুই সপ্তাহের বেশি সময় পর। ডিলান তাঁর প্রতিক্রিয়ায় ডিলান বলেছিলেন, ওই পুরস্কারের ঘোষণা তাঁকে বাকরুদ্ধ করে দিয়েছিল।

উল্লেখ্য, ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের শরণার্থীদের সহযোগিতায় নিউইয়র্কের মেডিসন স্কয়ার গার্ডেনে ‘কনসার্ট ফর বাংলাদেশ’ এ পারফর্ম করেছিলেন বব ডিলানও। এতে তার সঙ্গী ছিলেন বিখ্যাত দ্য বিটল্স ব্যান্ডের জর্জ হ্যারিসন ও ভারতীয় সেতার বাদক পণ্ডিত রবি শংকর। নিউইয়র্কের ম্যাডিসন স্কয়ার গার্ডেনে ১৯৭১ সালের ১ আগস্ট হয়েছিল ‘কনসার্ট ফর বাংলাদেশ। ওইদিন বব ডিলান গেয়েছিলেন ‘এ হার্ড রেইন’, ‘ব্লোইন ইন দ্য উইন্ড’, ‘জাস্ট লাইক এ ওমেন’সহ দুনিয়া মাতানো আরো কয়েকটি গান।

LEAVE A REPLY