ক্রীড়া ডেস্ক

টেস্টে আট বছর পর ফিরছেন পার্থিব প্যাটেল। ঋদ্ধিমান সাহার চোট পার্থিবের জন্য খুলে দিল ভারতীয় টেস্ট দলের দরজা। ভারতীয় ক্রিকেটে সাম্প্রতিককালে এত দীর্ঘ বিরতি দিয়ে টেস্ট খেলার নজির নেই বললেই চলে। এখনকার আধুনিক ক্রিকেটে তা তো আরও বিরল। যখন বাদ পড়েছিলেন, পার্থিবের বয়স মাত্র ২২। সেই পার্থিব ত্রিশের যুবক। যখন বাদ পড়েছিলেন, তাঁর এখনকার টেস্ট অধিনায়ক দৃশ্যেপটেই নেই। ঘরোয়া আর বয়সভিত্তিক ক্রিকেটে আলো ছড়াচ্ছেন। সেই বিরাট কোহলির নেতৃত্বে আবারও খেলতে নামবেন গুজরাটের এই ক্রিকেটার।

২০০৮ সালে সর্বশেষ টেস্ট খেলেন পার্থিব। তবে ঘরোয়া ক্রিকেটে যথেষ্টই ধারাবাহিক ছিলেন। গত আট বছরে ঘরোয়া ক্রিকেটে ১৭টি সেঞ্চুরি ও ২৯টি ফিফটি করেছেন। ৫১.৩১ গড়ে রান করেছেন ৫ হাজার ২শ ৩৪ রান।

২০০২ সালে ট্রেন্টব্রিজে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মাত্র ১৬ বছর বয়সে টেস্ট অভিষেক হয়েছিল পার্থিবের। ক্যারিয়ারে ২০টি টেস্ট খেলেছেন। সম্ভাবনা থাকলেও মাঝের সময়টায় খুব বেশি প্রস্ফুটিত হয়নি পার্থিবের ক্যারিয়ার। ২০০৪ সাল পর্যন্ত নিয়মিতই খেলেছেন। এরপর হারান জায়গা। মহেন্দ্র সিং ধোনি আসার পর আর ফেরার সুযোগই ছিল না। ১৯ টেস্টেই থমকে ছিল ক্যারিয়ার। তবে সাম্প্রতিককালে রঞ্জি ট্রফিতে দুর্দান্ত খেলেছেন। ৫৯.২৮ গড়ে করেছেন ৪১৫ রান। ডিসমিসাল আছে ১৭টি।

LEAVE A REPLY