‘গুরুতর শৃঙ্খলাবহির্ভূত’ কাজের অপরাধে বিপিএলের পারিশ্রমিকের ৩০ শতাংশ জরিমানা দিতে হয়েছে রাজশাহী কিংসের ব্যাটসম্যান সাব্বির রহমানকে। এবারের বিপিএলে সাব্বিরের পারিশ্রমিক ছিল ৪০ লাখ টাকা। এ হিসাবে সাব্বিরকে গুণতে হচ্ছে ১৩ লাখ ৩৩ হাজার টাকা।

একই অভিযোগে বরিশাল বুলসের পেসার আল আমিনকেও বিপিএলের পারিশ্রমিকের ৫০ শতাংশ জরিমানা করা হয়েছে। আল আমিনের পারিশ্রমিক ছিল ২৫ লাখ টাকা। তবে জাতীয় দলের এ দুই ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে ম্যাচ ফিক্সিং বা স্পট ফিক্সিংয়ের কোনো অভিযোগ নেই। দুই ক্রিকেটার ঠিক কী করেছেন তাও স্পষ্ট করে জানাতে রাজি নয় বিসিবি।

বাংলাদেশ ক্রিকেটের এক দায়িত্বশীল সূত্র থেকে জানা যায়, বিপিএল চট্টগ্রাম পর্ব চলাকালীন টিম হোটেলে এ দু’জনই নারীঘটিত কেলেঙ্কারির সঙ্গে জড়িত ছিলেন। হোটেল রুমে নিয়মবহির্ভূত নারী অতিথি নিয়ে যাওয়ার অপরাধেই জরিমানা করা হয়েছে সাব্বির ও আল আমিনকে। যা টিম হোটেলে থাকা বিসিবির পর্যবেক্ষক দলের চোখে ধরা পড়ে। পরে বিষয়টির তদন্ত করেই দু’জনকে এ শাস্তি দেয়া হয়।

সাব্বিরের ব্যক্তিগত কিছু বিষয় নিয়ে সংবাদ মাধ্যমে এবং ফেসবুকে অনেক কিছুই বলা হচ্ছে। এরই প্রেক্ষিতে শুক্রবার রাতে সাব্বির রহমান তার ফেসবুক পেজে নিজেকে নির্দোষ দাবি করে একটি ভিডিও শেয়ার করেন। সেই ভিডিও সবাইকে ছড়িয়ে দেয়ারও আহ্বান জানান তিনি। নিজের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ অস্বীকার করে তার ভক্তদের উদ্দেশ্যে সাব্বির উল্টো প্রশ্ন করেছেন, আপনাদের কি বিশ্বাস হয় যে আমি এ কাজটা কখনো করেছি? আমি কি এসব করতে পারি ?

তিনি বলেন, মেয়ে, ছেলে, ছোট থেকে বৃদ্ধ সবাই আমার ফ্রেন্ড। সবাইকে তো আমি ছবি তুলতে মানা করতে পারবো না।

সাব্বির রহমান তার ভিডিওতে আরো বলেছেন, আমি রেস্টুরেন্টে খেতে যাই বা শপিং মলে যাই বা যখন সিনেমা হলে ছবি দেখতে যাই তখন যদি তারা এসে বলে ভাই একটা ছবি তুলি, একটা মেয়ে যদি বলে- আমি কি সেটা ডিনাই করতে পারবো ?

সাব্বির রহমান মনে করেন তার সাথে তোলা কোনো ছবি অপব্যবহারের কারণেই এ সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে। তিনি বলেছেন, মেয়েরা সিঙ্গেল ছবি তোলে, ছেলেরাও তোলে, তারপর সেটা ফেসবুকে দেয় এবং এ ছবি যদি কেউ অপব্যবহার করে সেটা কি আমার দোষ?

তিনি বলেন, আপনাদের যদি মনে হয় যে এই কাজগুলো আমি করেছি তাহলে আমার কিছু বলার নেই। আর যদি মনে করেন যে এসব কাজ আমি করি নাই তাহলে এই ভিডিওটা শেয়ার করুন। সবাই দেখুক, সবাই বুঝুক যে এই কাজ আমি কখনোই করতে পারি না।

ভিডিওটি শেষ করার আগে তিনি সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন, যাতে আগামীতে তিনি আরো ভালো খেলতে পারেন।

LEAVE A REPLY