আন্তর্জাতিক ডেস্ক

সৌদি আরব সমর্থিত ও আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত একটি সরকারের সাথে ইয়েমেনের হুতি বিদ্রোহী ও সাবেক প্রেসিডেন্ট আলী আবদুল্লাহ সালেহর অনুসারীরা দীর্ঘ এক যুদ্ধে লিপ্ত রয়েছে। যুদ্ধাবস্থার দরুন দেশটিতে পণ্যবাহী জাহাজ প্রবেশের উপর সৌদি আরবের বিধিনিষেধ রয়েছে, ফলে সেখানে খাদ্য সাহায্য সরবরাহের সুযোগ খুব সীমিত।

এই পরিস্থিতিতে ইয়েমেন ধীরে ধীরে দুর্ভিক্ষের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছে আরেকটি আন্তর্জাতিক দাতা সংস্থা অক্সফ্যাম।

সংস্থাটি সৌদি কর্তৃপক্ষের কাছে জাহাজ চলাচলে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছে।

একই সাথে আন্তর্জাতিক মহলের কাছে আবেদন জানিয়েছে ইয়েমেনের জন্য খাদ্য সহায়তা বাড়াতে।

জাতিসংঘ বলছে, ইয়েমেন মানবিক পরিস্থিতি যখন ক্রমেই অবনতির দিকে যাচ্ছে, তখন বিশ্ববাসীর যেন সেদিকে নজরই নেই।

ইয়েমেন থেকে জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক সমন্বয়ক জেমি ম্যাকগোল্ডরিক বিবিসিকে বলেন, আন্তর্জাতিক সহায়তার অভাবে দেশটিতে এখন শিশুরা ক্ষুধায় মৃত্যুবরণ করতে শুরু করেছে।

পুরো দেশের অবকাঠামো ভেঙে পড়েছে, এবং দেশটির অর্ধেক জনগোষ্ঠীই টিকে থাকবার অবলম্বন হারিয়ে ফেলেছে।

মি. ম্যাকগোল্ডরিক বলেন, বিশ্ববাসীর এখন উচিত ইয়েমেনকে সাহায্য না করবার জন্য দুঃখিত হওয়া।

 

LEAVE A REPLY