কক্সবাজারের টেকনাফের নাফ নদী দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশকালে নির্যাতিত রোহিঙ্গাদের ১৯টি নৌকা মিয়ানমারে ফেরত পাঠিয়েছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ- বিজিবি। এসব নৌকায় অন্তত ২৮৫ জন রোহিঙ্গা মুসলিম নারী, পুরুষ ও শিশু ছিল। 
শুক্রবার রাত থেকে শনিবার ভোর পর্যন্ত ওইসব নৌকা তিনটি পয়েন্ট দিয়ে বাংলাদেশ সীমান্তে অনুপ্রবেশের চেষ্টা করে।

টেকনাফ বিজিবি-২ ব্যাটালিয়নের উপঅধিনায়ক মেজর আবু রাসেল সিদ্দিকী জানান, টেকনাফের নাফ নদীর জীবনখালী, হ্নীলা ও টেকনাফ পয়েন্ট দিয়ে শুক্রবার রাত থেকে শনিবার ভোর পর্যন্ত রাখাইন রাজ্যে নির্যাতিত রোহিঙ্গা মুসলিমবাহী প্রায় ১৯টি নৌকা বাংলাদেশ সীমান্তে অনুপ্রবেশের চেষ্টা করে। এ সময় বিজিবির টহল দলের সদস্যরা সীমান্ত রেখা থেকে নৌকাগুলো মিয়ানমারের দিকে ফেরত পাঠায়।

টেকনাফ বিজিবির এই কর্মকর্তা জানান, প্রতিটি নৌকায় প্রায় ১৪/১৫ জন করে লোক ছিল। এর মধ্যে নারী, পুরুষ ও শিশু ছিল।

বিজিবির ধারণা, ১৯ নৌকায় প্রায় ২৭০ থেকে ২৮৫ জন রোহিঙ্গ ছিল।

বিজিবি জানায়, রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশ ঠেকাতে টেকনাফ সীমান্তের প্রতিটি পয়েন্টে বিজিবির কঠোর সতর্ক নজরদারি এবং টহল জোরদার রয়েছে।

LEAVE A REPLY