কোহলির মতো আর কেউ নেই!

অবিশ্বাস্য, ভয়ালসুন্দর, অদ্বিতীয়…। বিরাট কোহলির নামের পাশে আর কী বিশেষণ বসানো যায়! একটা জায়গায় যে কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকারও তাঁর কাছে নেই। রান তাড়া করে দলকে জয় এনে দেওয়ার ক্ষেত্রে। এমনই অবিশ্বাস্য তিনি, কোহলির মতো আর কেউ নেই!
পুনেতে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে ঠিক ৩৫০ রান করল ইংল্যান্ড। ভারত ১১ বল আর ৩ উইকেট হাতে রেখে অনায়াসেই যে এতটা পথ পেরোল, কোহলির ব্যাটের ধারেই। বড় অবদান আছে কেদার যাবদের সেঞ্চুরিরও। কিন্তু কোহলির ইনিংসটার মাহাত্ম্য বেড়ে যাচ্ছে ভারত ৬৩ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে ফেলেছিল বলে। সাজঘরে ফিরে গিয়েছিলেন সদ্যই সাবেক অধিনায়ক হওয়া ‘ফিনিশার’ মহেন্দ্র সিং ধোনিও। এরপরও ভারত ম্যাচটি জিতল। দলে যে আছেন ‘দ্য চেজার’ কোহলি।
কোহলিকে ‘দ্য চেজার’ বলাই যায়। গতকালের সেঞ্চুরিতে (১২২ রান) একদিক থেকে টেন্ডুলকারকে ছুঁয়ে ফেলেছেন কোহলি। ওয়ানডেতে ম্যাচের দ্বিতীয় ইনিংসে টেন্ডুলকারের মতো এখন তাঁরও ১৭টি সেঞ্চুরি। এই রেকর্ডটা করতে টেন্ডুলকারকে খেলতে হয়েছে ২৩২ ইনিংস। আর আর কোহলি তাঁকে ছুঁয়ে ফেলেছেন মাত্র ৯৬ ইনিংসে। রান তাড়া করতে গেলেই যে কোহলির ব্যাট বেশি খোলে!
৩৫০ বা এর বেশি রান তাড়া করে জেতার ঘটনা ওয়ানডে ক্রিকেটে আছেই মাত্র ৬টি। এর মধ্যে তিনটিই ভারতের। এই ম্যাচের আগে ২০১২-১৩তে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে জয়পুরে ৩৬০ আর নাগপুরে ৩৫১ রান তাড়া করে জিতেছিল তারা। ওই দুই ম্যাচেও সেঞ্চুরি করেছিলেন কোহলি। শুধু কি তাই? ৩০০ বা এর বেশি রান তাড়া করে জেতা ভারতের ৮টি ম্যাচেই সেঞ্চুরি আছে কোহলির। কী অবিশ্বাস্য রেকর্ড!

রান তাড়া করে ভারত জিতেছে এমন ১৫ ম্যাচে সেঞ্চুরি করেছেন কোহলি। ওয়ানডেতে আর কোনো ব্যাটসম্যানের এই কীর্তি নেই। ১৪টি সেঞ্চুরি নিয়ে তাঁর পরে আছেন টেন্ডুলকার। ওয়ানডেতে টেন্ডুলকারের মোট সেঞ্চুরি ৪৯টি, কোহলির ২৭টি। এর অর্ধেকেরও বেশি সেঞ্চুরি কোহলি করেছেন রান তাড়া করে জেতা ম্যাচে।
রান তাড়ায় কোহলি কতটা ভয়ংকর তা স্পষ্ট হয় আরেকটি পরিসংখ্যানেও। ওয়ানডেতে তাঁর ক্যারিয়ার গড় ৫৩.৪১। প্রথমে ব্যাট করা ইনিংসগুলোতে ৪১.৫৭ গড়ে রান করেছেন। আর তাড়া করা ম্যাচগুলোতে রান করেছেন ৬৪.৯৪ গড়ে।
দিবারাত্রির ম্যাচে রানা তাড়া করতে গেলে কোহলির ব্যাট হয়ে ওঠে আরও ভয়ালসুন্দর। রান তাড়া করে জেতা যে ১৫টি ম্যাচে সেঞ্চুরি করেছেন, এর ১৪টিই যে এসেছে কৃত্রিম আলোর নিচে!
রান তাড়া করা মানেই চাপ। আর এই চাপ যত বড় হয়, কোহলি যেন ততই উপভোগ করেন। তাঁর মতো আর কে আছে বলুন!

LEAVE A REPLY