পাঁচ বিশ্বনেতার সঙ্গে কথা বললেন ট্রাম্প

বিশ্বনেতাদের সঙ্গে ফোনালাপ সম্পন্ন করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এই তালিকায় ছিলেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন, জার্মানির চ্যান্সেলর অ্যাঞ্জেলা মার্কেল, জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজে অ্যাবে, ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওঁলাদ এবং অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী ম্যালকম টার্নবুল। প্রেসিডেন্ট হিসেবে ক্ষমতা গ্রহণের পর প্রথমবারের মত বিশ্বনেতাদের সঙ্গে একত্রে ফোনে কথা বললেন ট্রাম্প।

পাঁচ বিশ্বনেতার সঙ্গে কথা বলে ট্রাম্প তার প্রেসিডেন্ট ক্ষমতা গ্রহণের পর সবচাইতে ব্যস্ত কূটনীতিক সময় কাটিয়েছেন শনিবার। সবার সাথে ফোনে কথা বলা শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গেও কথা বলেন তিনি।

এদিন ওয়াশিংটনের স্থানীয় সময় সকাল ৯টায় জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজে অ্যাবের সঙ্গে কথা বলেন ট্রাম্প। এই আলোচনা ছিল খুবই সাধারণ পর্যায়ের।

এরপরের ফোনকলটি ছিল ট্রাম্পের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ। জার্মানের চ্যান্সেলর অ্যাঞ্জেলা মার্কেলের সঙ্গে স্থানীয় সময় সকাল ১১টায় কথা বলেন ট্রাম্প। এ সময় ট্রাম্পকে আরো একবার দেয়াল দিয়ে বিভেদ সৃষ্টি না করার পরামর্শ দেন মার্কেল। সেই সঙ্গে শরণার্থী ইস্যু নিয়েও আলোচনা হয়।

দুপুর ১২টার পর ট্রাম্প কথা বলেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে। সেখানে বিশ্ব সন্ত্রাসবাদ রুখতে একত্রে কাজ করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করে হোয়াইট হাউজ ও ক্রেমলিন।

দুপুর ২টায় ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওঁলাদের সঙ্গে কথা বলেন ট্রাম্প। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর থেকে বন্ধু রাষ্ট্র দুটির মধ্যে সম্পর্ক আরো উন্নয়ন করা প্রয়োজন বলে মত দেন উভয় দেশের প্রধান।

বিকেল ৫টায় ট্রাম্প সর্বশেষ ফোনালাপ করেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী সঙ্গে। সেখানে ম্যালকম টার্নবুল আশা প্রকাশ করেন, শরণার্থী গ্রহণের ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র তার প্রতিশ্রুতি রক্ষা করবে। বিবিসি ও সিএনএন।

LEAVE A REPLY