অস্ট্রেলিয়ার পমলবোর্নে এক বিপনী বিতানে একটি ছোট বিমান বিধ্বস্ত হয়ে পাঁচজন নিহত হয়েছেন।

ভিক্টোরিয়া পুলিশের সহকারি কমিশনার স্টিফেন লিন জানান, স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সকাল ৯ টার দিকে এসেনডেন বিমানবন্দর থেকে আকাশে ওড়ার কিছুক্ষণ পরই আকস্মিকভাবে বিমানটির ইঞ্জিন বিকল হয়ে পড়ে এবং তা একটি বিপনী বিতানের ওপর আছড়ে পড়ে।

এতে বিমানে থাকা সবাই নিহত হয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

তিনি জানান, দুর্ঘটনার সময় বিপনী বিতানটি বন্ধ থাকায় হতাহতের সংখ্যা বাড়েনি।

এ ঘটনায় শোক প্রকাশ করে ভিক্টোরিয়ার প্রধানমন্ত্রী ড্যানিয়েল অ্যান্ড্রুজ বলেন, ‘এটি ভয়াবহ একটি শোকের দিন। এ ধরনের দুর্ঘটনা গত ৩০ বছরে এ অঙ্গরাজ্যে হয়নি।’

মেলবোর্নের ১৩ কিলোমিটার উত্তর পশ্চিমে এসেনডেন বিমানবন্দর সাধারণত হালকা যাত্রীবাহী উড়োজাহাজ ওঠানামার জন্য ব্যবহৃত হয়।

বিপনীবিতানের একজন বিক্রেতা জানান, উড়োজাহাজটি স্পটলাইট নামের একটি দোকানের গুদামঘরের ওপর আছড়ে পড়ে। তবে তাদের সব কর্মীই নিরাপদে আছেন।

স্থানীয় চ্যানেল নাইনের একটি ভিডিওতে ঘটনাস্থলে আগুন জ্বলতে ও ধ্বংসস্তূপ থেকে কালো ধোঁয়া বের হতে দেখা যায়।

জনৈক প্রত্যক্ষদর্শী মাইক কাহিল বলেন, বিস্ফোরণের পর লাল-কালো আগুনের হলকা কমপক্ষে ৩০ মিটার ওপরে উঠে যায়।

অস্ট্রেলিয়ার ট্রান্সপোর্ট সেফটি ব্যুরো জানিয়েছে, টুইন ইঞ্জিনের উড়োজাহাজটি কীভাবে দুর্ঘটনায় পড়েছে তা নিয়ে তদন্ত শুরু হয়েছে।

LEAVE A REPLY