স্থানান্তরে ব্যর্থ হওয়ায় রাজধানীর হাজারীবাগে থাকা ১৫৪ ট্যানারি অবিলম্বে বন্ধে হাইকোর্টের দেওয়া আদেশ বহাল রেখেছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ।

হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে ট্যানারি মালিকদের করা আবেদন খারিজ করে রোববার আদেশ দেন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগের তিন সদস্যের বেঞ্চ।

এর আগে পরিবেশবাদী সংগঠন বাংলাদেশ পরিবেশ আইনবিদ সমিতির (বেলা) করা সম্পূরক এক আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্ট গত ৬ মার্চ হাজারীবাগের সব ট্যানারি বন্ধের নির্দেশ দেন। একই সঙ্গে কারখানাগুলোর গ্যাস, পানি ও বিদ্যুতের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করারও নির্দেশ দেন হাইকোর্ট।

হাজারীবাগে ১৫৪টি ছোট-বড় ট্যানারি রয়েছে। ২০০৯ সালের ২৩ জুন এসব ট্যানারিকে এক বছরের মধ্যে সাভারের চামড়া শিল্পনগরীতে সরিয়ে নিতে নির্দেশ দিয়েছিলেন হাইকোর্ট।

এরপর বহুবার সময় দেওয়া হলেও অধিকাংশ কারখানা এখনও সরেনি। এ কারণে পরিবেশের ক্ষতিপূরণ হিসেবে ট্যানারিগুলোকে প্রতিদিনের জন্য জরিমানাও করেন হাইকোর্ট।

এরই মধ্যে শিল্প মন্ত্রণালয় আদালতের অনুমতি ছাড়া হাজারীবাগ থেকে ট্যানারি স্থানান্তরের সময়সীমা ২০১৭ সালের মার্চ পর্যন্ত বাড়ানোর ঘোষণা দিলে এর আইনগত বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে বেলা গত ৩ জানুয়ারি একটি রিট দায়ের করে।

সেই রিট নিষ্পত্তি করে গত ৬ মার্চ হাজারীবাগের সব ট্যানারি বন্ধের আদেশ দেন হাইকোর্ট। পরে হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে ট্যানারি মালিকরা সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে আবেদন করেন। এই আবেদনের শুনানি নিয়ে রোববার হাইকোর্টের আদেশ বহাল রাখেন আপিল বিভাগ।