সরকার সাংঘাতিক ভুল পথে হাঁটছে

সুপ্রিম কোর্ট চত্বর থেকে ভাস্কর্য সরানো নিয়ে জ্যেষ্ঠ আইনজীবী শাহদীন মালিক বলেছেন, এ ঘটনা উগ্র ধর্মীয় গোষ্ঠীর সঙ্গে সরকারের আপসকামিতার ইঙ্গিত।
আজ শনিবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে একটি সংগঠনের অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

শাহদীন মালিক বলেন, কোর্ট প্রাঙ্গণ থেকে ভাস্কর্য অপসারণের ঘটনাটি পরোক্ষভাবে সুপ্রিম কোর্টের ওপর চাপ সৃষ্টির করার একটি সরকারি প্রয়াস। মধ্যযুগীয় ব্যাখ্যায় যারা ধর্মকে ব্যবহার করে, সরকার তাদের কাছে আত্মসমর্পণ করেছে।

শাহদীন মালিক আরও বলেন, ‘এই ঘটনা আমাকে হতাশ করেছে। এদের সঙ্গে আপসকামিতার মাধ্যমে সরকার উগ্র ধর্মীয় চিন্তাকে উসকে দিচ্ছে। সরকারি দল সাংঘাতিক ভুল পথে হাঁটছে।’

সুপ্রিম কোর্ট চত্বর থেকে গত বৃহস্পতিবার রাতে সরানো হয় আলোচিত ভাস্কর্যটি। হেফাজতে ইসলামসহ ধর্মভিত্তিক কয়েকটি দল পবিত্র রমজানের আগেই এটি সরানোর জন্য দাবি জানিয়ে আসছিল। ভাস্কর্য সরানোর ঘটনায় গতকাল শুক্রবার সকাল থেকেই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় বিক্ষোভ করে কয়েকটি ছাত্রসংগঠন।

এ ঘটনায় সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের গতকাল বলেন, ভাস্কর্য অপসারণের বিষয়টি সরকারের এখতিয়ারে নেই। এটি সুপ্রিম কোর্টের সিদ্ধান্ত।