চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে নির্বাচনী প্রচারণার সময় পেট্রলবোমা হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে তিনজন দগ্ধ হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। আওয়ামী লীগের প্রচারণার সময় এ হামলার ঘটনা ঘটে। আহতদের চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (চমেক) ভর্তি করা হয়েছে। তবে আওয়ামী লীগ প্রার্থী পেট্রলবোমা হামলার ঘটনায় আটজন আহত হওয়ার দাবি করেছেন।

দগ্ধরা হলেন- ছাত্রলীগকর্মী সাদ্দাম হোসেন (২৮), মো.রায়হান (২০) ও তৈয়ব উদ্দিন (২৮)। এছাড়া লোহার রডের আঘাতে আহত হন আবু সালেহ মোহাম্মদ সামশুদ্দিন (৪২)।

মঙ্গলবার দুপুর ১২টার দিকে সীতাকুণ্ড উপজেলার ভাটিয়ারি ইউনিয়নের মাদাম বিবিরহাটের জাহানাবাদ গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

আওয়ামী লীগ নেতা দিদারুল আলম এমপি বলেন, মঙ্গলবার দুপুর ১২টার দিকে অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে বিএনপি-জামায়াতের লোকজন আমাদের লোকের ওপর হামলা করে। তারা হামলায় ২০১৩-১৪ সালের মতো পেট্রলবোমা ব্যবহার করে। পেট্রলবোমায় ছাত্রলীগকর্মী তৈয়ব আলী সাদ্দাম হোসেনসহ আটজন আহত হন। আহতদের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক তোফাজ্জল আহমেদ বলেন, পুরো সীতাকুণ্ড এলাকায় আওয়ামী লীগের সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা আমাদের ওপর হামলা করেছে। আমাদের মাইক ভাঙচুর করেছে। পোস্টার ও ব্যানার ছিঁড়ে ফেলেছে। আমাদের গণসংযোগ করতে দিচ্ছে না।

সীতাকুণ্ড মডেল থানার ওসি দেলাওয়ার হোসেন বলেন, হামলার ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।