শীত বিদায় নিয়ে বসন্ত এসেছে। ঋতু বদলের এই সময়ে রোগ ছড়ায় সবচেয়ে বেশি। তাই এই সময়ে শরীরের খেয়াল রাখা খুব জরুরি। বাড়ি থেকে বাইরে বের হতে হলে সাথে রাখুন খাবার পানি। কাজের মাঝে মাঝে ডাবের পানি পান করলে ভালো ফলাফল পাবেন। ডাবের পানি খেলে শরীরের অনেক উপকার হয়।

জেনে নিন ডাবের পানি উপকারিতা সম্পর্কে

ডাবের পানি হল প্রাকৃতিক স্যালাইন। যারা সমুদ্র উপকূলে বা রোদে কাজ করেন তারা দিনে দুই-তিনটি ডাব খেতে পারেন। ডাবের পানিতে উপকারি উৎসেচক (এনজাইম) থাকায় তা হজমে অত্যন্ত সাহায্য করে। অনেকের জন্যই ভারি কিছু খাওয়ার পর ডাবের পানি বেশ উপকারি।

ডাব আমাদের শরীরে পানি ভারসাম্য বজায় রাখে। তাই ক্ষতিকর খাবারের পরিবর্তে ডায়েটে রাখুন ডাবের পানি। এতে প্রচুর পরিমাণে পটাশিয়াম, সোডিয়াম রয়েছে। তাই শরীরে এসব খনিজের অভাব রুখে দিতে পারে ডাবের পানি।

ডাবের পানির মধ্যে রয়েছে মূত্রবর্ধক উপাদান। এটি ইউরিনারি ট্র্যাক্ট পরিষ্কারে সাহায্য করে। শরীরে শক্তি জোগাতে সাহায্য করে ডাবের পানি। এছাড়া এটি থাইরয়েড হরমোনের উৎপাদন বাড়ায়।

শরীরচর্চা বা পরিশ্রমের কাজ করার পর এক গ্লাস ডাবের পানি শরীরের শক্তি পুনরুদ্ধারে সাহায্য করে।

প্রতিদিন এক কাপ ডাবের পানি পান করলে ত্বক আর্দ্র থাকে। ফলে ব্রণের সমস্যা কমে।

এটি খাবার হজমেও বেশ সাহায্য করে। নিয়মিত ডাবের পানি পান করলে গ্যাসট্রিকের সমস্যা কমে। ডাবের পানি শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। এটি ইউরিনারি ট্র্যাক্টে সংক্রমণকারী ব্যাকটেরিয়াকে প্রতিরোধ করে।

তবে যেকোনো খাবার নিয়মিত খাওয়ার আগে আপনার শরীরের অবস্থা বুঝতে হবে। প্রয়োজনে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।